সাধ্যের মধ্যে সাধ পূরণে গুগল পিক্সেল ৩এ এক্সএল

গুগলের বাৎসরিক ডেভেলপার ইভেন্ট গুগল আইও তে উন্মোচিত হয়েছে গুগল পিক্সেল ৩এ এবং পিক্সেল ৩এ এক্সএল। চলুন জেনে নেওয়া যাক, গুগল পিক্সেল ৩এ এক্সএল এর পুরো স্পেসিফিকেশন

ডিসপ্লেঃ

ফোনটিতে ৬ ইঞ্চি ফুল এইচডি প্লাস ওলেড ডিসপ্লে ব্যবহার করা হয়েছে। এর রেজুলেশন ১০৮০*২১৬০ পিক্সেল এবং রেশিও ১৮ঃ৯। স্ক্রিন থেকে বডি রেশিও ৭৬.৯%। ডিসপ্লের সুরক্ষার জন্য ড্রাগণট্রেইল গ্লাস ব্যবহার করা হয়েছে।

চিপসেটঃ

এতে ২.০ গিগাহার্জ অক্টাকোর স্ন্যাপড্রাগণ ৬৭০ প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। এর জিপিউ অ্যাড্রিনো ৬১৫।

র‍্যাম ও স্টোরেজঃ

ডিভাইসটিতে ৪ জিবি র‍্যাম এবং ৬৪ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজ ব্যবহার করা হয়েছে। এর স্টোরেজ বাড়ানো কোনো সুযোগ নেই, ৬৪ জিবি শেষ ভরসা।

ক্যামেরাঃ

পিক্সেল ফোনগুলো মূলত ক্যামেরার জন্য বিখ্যাত। ফোনটির পেছনে ১২.২ মেগাপিক্সেলের সনি আইএমএক্স৩৬৩ ক্যামেরা লেন্স ব্যবহার করা হয়েছে, এর অ্যাপার্চার এফ/১.৮। ২৮ মিলিমিটার ওয়াইড লেন্স। এর ক্যামেরা দিয়ে ২১৬০ পিক্সেলে ভিডিও ধারণ করা যাবে।

সেলফি তোলার জন্য রয়েছে ৮ মেগাপিক্সলের ক্যামেরা, এর অ্যাপার্চার এফ/২.০। সেলফি ক্যামেরাটি ২৪ মিলিমিটার ওয়াইড। এই ক্যামেরা দিয়ে ১০৮০ পিক্সেলে ভিডিও করা যাবে।

ব্যাটারি ও ওএসঃ

ফোনটিতে ৩,৭০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ারের ব্যাটারি ব্যবহার করা হয়েছে। ব্যাটারি দ্রুত গতিতে চার্জ দেওয়ার জন্য রয়েছে ১৮ ওয়াটের ফাস্ট চার্জিং।

এর অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে অ্যান্ড্রয়েড ৯.০ পাই ব্যবহার করা হয়েছে।

আরো পড়ুনঃ উন্মোচিত হয়েছে গুগল পিক্সেল ৩এ

অন্যান্যঃ

ব্যবহারকারীদের তথ্যের সুরক্ষার জন্য ফোনটির পেছনে রয়েছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। এতে হেডফোন জ্যাক, এনএফসি ও ইউএসবি টাইপ-সি রয়েছে।

রঙ ও দামঃ

ফোনটি বাজারে কালো, সাদা ও বেগুনী রঙে পাওয়া যাবে।

গুগল পিক্সেল ৩এ এক্সএল এর দাম ধরা হয়েছে ৪৭৯ ডলার (৪০,৫১০ টাকা)।

ইতিমধ্যে ফোনটির বিক্রি শুরু হয়েছে। ভারতের বাজারে আগামী ১৫ মে থেকে ফোনটি পাওয়া যাবে। এরপরেই দেশের বাজারেও ফোনটি পাওয়া যাবে।

ইরফান

প্রযুক্তির বিভিন্ন বিষয় নিয়ে জানতে এবং জানাতে ভালোবাসি, জানানোর লক্ষ্য নিয়ে ভালোবাসা দিয়ে গড়ে তুললাম টেকি নাউ।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।